সারাবাংলা

সিলেটের জৈন্তাপুরে এলাকাবাসীর মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত

মোঃ সাজ উদ্দিন সাজু, সিলেট জেলা প্রতিনিধি:

সিলেট জেলার জৈন্তাপুরে ফ্রেসিয়া টি এন্ড ট্যুরিজম লিমিটেড এর নামে জনসাধারণের বসতবাড়ি সহ সরকারি খাস ভূমি লীজ প্রদানের প্রতিবাদে জৈন্তাপুর স্টেশন বাজারে মানববন্ধন পালন করেছে ০৬ নং ওয়ার্ডের (কালিঞ্জিবাড়ি ও হর্নি) গ্রামের প্রায় দুই হাজার বসতবাড়ি বাসিন্ধারা।

২৬ জানুয়ারি (বুধবার) দুপুর ০২:৩০ ঘটিকায় নিজপাট ইউপি’র ০৬ নং ওয়ার্ডের কালিঞ্জিবাড়ি ও হর্নি গ্রামের বাসিন্ধা মাষ্টার রহমত আলী’র সভাপতিত্বে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড জৈন্তাপুর উপজেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদের পরিচালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন নিজপাট ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মতিন শাহীন, আব্দুল মালিক পাখি, মোঃ ইন্তাজ আলী, মোঃ নাজিম উদ্দিন, মোঃ ইসলাম উদ্দিন, মাওলানা আলীম উদ্দিন, মোঃ জালাল উদ্দিন লিটন। এছাড়া ইয়াহিয়া আহমদ, আলহাজ্ব হোসেন আহমদ, রহিম উদ্দিন, সাব্বির আহমদ, গ্রাম বাসীর পক্ষে বক্তব্য রাখেন মোঃ মন্তাজ আলী, হারিছ উদ্দিন বাবুল, মোঃ আব্দুস শুকুর, মোঃ আব্দুল করিম, মোঃ আব্দুল মালিক, সিকন্দর আলী, মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সহ সভাপতি ইউপি সদস্য আব্দুল কাদির প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, নিজপাট ইউনিয়নের ০৬ নং ওয়ার্ড হচ্ছে কালিঞ্জিবাড়ি ও হর্নি গ্রাম। এই গ্রামে প্রায় দুই হাজারের বসতবাড়ি রয়েছে। একটি বিশেষ মহলের ইশারায় ওয়ার্ডবাসীকে উচ্ছেদ করে ফ্রেসিয়া টি এন্ড ট্যুরিজম লিমিটেড নামে জমি বরাদ্ধ নিয়ে উচ্ছেদ, ফসল বিনষ্ট, বাড়িঘর ধ্বংস করে আপনি টি কোম্পানী প্রতিষ্ঠা করেত পারবেন না রবং আপনি (ফ্রেসিয়া টি কোম্পানী) যেখানে আছেন সেখানে থাকেন। নতুবা দুই হাজার বসতবাড়ির জনসাধারণ আপনাকে ফুলের তোড়া উপহার দিবে না। জায়গায় অবস্থান নেওয়ার চিন্তা করলে আপনাকে হাজার হাজার বাসিন্ধাদের রক্তের স্রোত বইতে হবে।

তারা আরও বলেন, সরকার বাহাদুর ভূমিহীন মানুষদের ভূমি বরাদ্ধ দিয়ে তাদের আবাসন ব্যবস্থা করে দিচ্ছে। সেই দেশে শান্তিপূর্ণভাবে বসবাসরত নাগরিকদের উচ্ছেদ করে আপনি টি কোম্পনী করবেন তাহা হবে না। আমরা জানি যুগের পর যুগ যে সমস্ত এলাকায় জনবসতি গড়ে উঠেনি এবং সরকারের হাজার হাজার একর ভূমি পতিত রয়েছে সেগুলো লীজ দেওয়ার বিধান রয়েছে। যুগের পর যুগ বসবাস করে আসা জনবসতি উচ্ছেদ করে একটি টি কোম্পানীকে বরাদ্ধ দেওয়ার ইতিহাস বাংলাদেশে নেই। সরকার যদি এসব জমি বরাদ্ধ দিতে হয় তাহলে এই ভূমিতে বসবাসকারীদের নামে বরাদ্ধ দিতে হবে। আমরা অভিলম্বে সরকার বাহাদুরের কাছে দাবী জানাচ্ছি দ্রুত লীজ বাতিল করে এলাকার শান্তিপ্রিয় জনসাধারণদের শান্তিতে বসবাস করার সুব্যবস্থা নিতে। অন্যতায় সিলেট-তামাবিল মহাসড়ক অবরোধ, জৈন্তাপুর উপজেলা প্রশাসন ঘেরাও সহ গোটা জৈন্তাপুর উপজেলাকে অচল করে দেওয়া হবে।

অপরদিকে জৈন্তাপুর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সাধারণ সম্পাদক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা মুফিজ মাষ্টারের বড় ছেলে শামীম আহমদ তার বক্তব্যে বলেন, আমাদের পিতা সহ চাচারা বুকের তাজা রক্ত দিয়ে দেশ স্বাধীন করেছেন। সেই ভূমিতে আমরা বসবাস করছি। আমরা ভূমি রক্ষায় শান্তিপূর্ণভাবে সকল আন্দোলন সংগ্রাম করেও যদি এদেশে বসবাস করতে না পারি তাহলে বাংলাদেশ ছেড়ে ছেলে মেয়ে সহ পরিবার পরিজন নিয়ে সীমান্তবর্তী দেশ ভারতে আশ্রয় নিতে বাধ্য হবো। মানববন্ধন শেষে বিক্ষোভ মিছিল সহ উপজেলা প্রশাসনের নিকট স্মারকলিপি পেশ করা হয়।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
error: Alert: Content selection is disabled!!