করোনাভাইরাসলিডসরকার

লকডাউন আরো বাড়বে কিনা? সিদ্ধান্ত আজ

 

বাংলার রাজপথ ডেস্কঃ

চলছে করোনা কালিন কঠোর লকডাউন। যার শেষ ঠিকানা ৫ আগস্ট পর্যন্ত। তবে বর্তমান পরিস্থিতি ও আক্রান্ত এবং মৃত্যুর কথা বিবেচনা করে আরো বাড়তে পারে সর্বাত্মক লকডাউন। সর্বাত্মক লকডাউন দিয়েও করোনার ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণ ঠেকানো যাচ্ছে না। এমতাবস্থায় লকডাউন আরও বাড়ানোর সুপারিশ করেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর।

লকডাউন বাড়বে কিনা সে বিষয়ে আজ সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। আজ বেলা ১১ টায় আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় তা চূড়ান্ত হবে বলে জানিয়েছে সরকারি সূত্র। মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হকের সভাপতিত্বে অনলাইনে এ সভা অনুষ্ঠিত হবে।
সভায় ১২ জন মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী, ১৬ জন সচিব, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসার, পুলিশ মহাপরিদর্শক, বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থার শীর্ষ কর্মকর্তা, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, আইইডিসিআর পরিচালকসহ সংশ্লিষ্টরা অংশ নেবেন।
সোমবার (২ আগস্ট) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত চিঠি সংশ্লিষ্টদের কাছে পাঠানো হয়েছে।
জানা গেছে, আজকের সভায় বিদ্যমান করোনা পরিস্থিতি ও স্বাস্থ্য অধিদপ্ততরের সুপারিশগুলো পুঙ্খানুপুঙ্খ আলাপ আলোচনা করে করণীয় নির্ধারণের বিষয় চূড়ান্ত করে তা অনুমোদনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর দফতরে পাঠানো হবে।
মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র ইঙ্গিত দিয়েছে, বৈঠক থেকে কিছু শর্ত শিথিল করে আরেক দফা বিধি-নিষিধ বাড়ানো হতে পারে। এর মেয়াদ হতে পারে কমপক্ষে আরও সাত দিন। প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন পেলে পরবর্তীতে প্রজ্ঞাপন জারি করা হবে।
জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সূত্র জানিয়েছে, ৫ আগস্টের পর আরও সাত দিনের জন্য লকডাউনের মেয়াদ বাড়লে সেক্ষেত্রে সরকারি-বেসরকারি অফিস সীমিত পরিসরে খুলে দেওয়া হতে পারে। সীমিত পরিসরে চালু করা হতে পারে গণপরিবহণ। রপ্তানিমুখী শিল্প-কলকারখানা তো চালু করা হয়েছে, সেটি চালু থাকবে বলে জানা গেছে।
উল্লেখ্য, বিদ্যমান পরিস্থিতিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে চলমান লকডাউন আরও ১০ দিন বাড়ানোর সুপারিশ করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

ঈদে সপ্তাহ খানেক লকডাউন শিথিল ছিল। ২৩ জুলাই থেকে ৫ আগস্ট পর্যন্ত কঠোর লকডাউন চলছে।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
error: Alert: Content selection is disabled!!